পেপে রেইনা – বদলি গোলরক্ষক?

পেপে রেইনা যদি এনফিল্ডে থেকে যাওয়া সিদ্ধান্ত নেন তবে তাকে দলের দুই নাম্বার গোলরক্ষক হিসাবে খেলতে হবে.

কোপ বস ব্রেনডন রজার্স নিশ্চিত করেছেন যে সাইমন মিগনোলেট তার দলের মূল একাদশের গোলরক্ষক হবেন। তিনি আশা করছেন যে আগামী সপ্তাহে এই বেলিজিয়াম আন্তর্জাতিক গোলরক্ষকে ১১ মিলিয়ন পাউন্ডে চুক্তিবদ্ধ করবেন।

এর ফলে স্প্যানিশ গোলরক্ষক পেপে রেইনাকে নতুন ক্লাব সন্ধানের জন্য চাপে ফেলে দিবে- অথবা লিভারপুল দলের বদলি খেলোয়াড় হিসাবে নিজেকে প্রস্তুত করতে হবে।

এই মৌসুমের দলবদলের বাজারে শুরু থেকে গুজব উঠেছে যে তিনি তার বাল্যকালের ক্লাবে ফিরে যাবেন। মারছিসাইডের এই দলের সাথে মিগনোলেটের একবার চুক্তি সম্পন্ন হয়ে গেলে গুজব আবার মাথা চারা দিয়ে উঠবে। ইতিমধ্যে শোনা গিয়েছে যে, রেইনার জন্য বারছা ১০ মিলিয়ন পাউন্ড প্রস্তাব দিয়েছে।

উলেক্ষ্য এই মৌসুমে বর্তমান লা-লীগ বিজয়ী এফসি বার্সেলোনার দলের মূল গোলরক্ষক ভিক্টর ভালদেস ইতিমধ্যে বারছাকে বিদায় জানিয়ে দিয়েছেন। কাতালান  ক্লাবটি ভালদেসের যোগ্য উত্তরসুরি হিসাবে ৩০ বছর বয়সী পেপে রেইনাকে চায়।

100210-016-Arsenal_Liverpool_Fotor_Collage

কিন্তু রেইনা কিছু দিন আগে এক সংবাদ সম্মেলনে ও খুব সাম্প্রতিক স্পেন-এর কন ফেডারেশান ক্যাম্পে উল্লেখ করেছিলেন যে, এনফিল্ডেই তার ভবিষ্যৎ এবং তিনি এখানেই থাকতে চান। বলা বাহুল্য তার সাথে এখনও লিভারপুলের চার বছরের চুক্তি আছে। ২০০৫ সালে লিভারপুল তার সাথে ৮ মিলিয়ন পাউন্ডের বিনিময়ে চুক্তি স্বাক্ষর করে এবং চুক্তি অনুযায়ী বর্তমানে তিনি প্রতি সপ্তাহে ৯০,০০০ পাউন্ড বেতন উপভোগ করছেন।

ফ্রেঞ্চ ক্লাব মোনাকো স্প্যানিশ এই অভিজ্ঞ গোলরক্ষকে তাদের দলে অন্তরভুক্ত করার ইচ্ছা প্রকাশ করছে। তারা সরাসরি বলে দিয়েছে যে অর্থ কোন সমস্যা না, কিন্তু রেইনা সম্ভবত এমন দলের সাথে যুক্ত হতে চাইবেন না যাদের নিজেদের মাঠে স্টেডিয়ামে গড়ে মাত্র পাঁচ হাজার দর্শক উপস্থিত হয়।

মিগনোলেট, ২৫ বছর বয়সী এই খেলোয়াড়ের এই সপ্তাহে স্বাস্থ্য পরীক্ষা হবার কথা এবং যদি সব কিছু ঠিকঠাক থাকে তবে তিনি  এই মৌসুমে এনফিল্ডে যোগদান করবেন।

প্রিমিয়ার লীগের সাথে যুক্ত হওয়ার পর বেলজিয়ান এই আন্তর্জাতিক গোলরক্ষকে অন্যতম সেরা গোলরক্ষক হিসাবে গণ্য করা হয়। তিন বছর আগে তিনি বেলজিয়ান ক্লাব স্টিন-ট্রু ডেন (Sint-Truiden) হতে সানডেরল্যান্ডে যোগ দেন। সাইমন মনে করেন লিভারপুলে যোগ দেওয়ার ফলে আসন্ন বিশ্বকাপ আসরে তিনি জাতীয় দলের প্রধান গোলরক্ষক হিসাবে দলে তার জায়গা পাকা করবেন।

About these ads