হিলসবোরো দুর্ঘটনা

LFC BANGLA -র জন্য লিখেছেন জিশান সাঈদ –

১৫/০৪/১৯৮৯ লিভারপুল এফসি এর জন্য একটি বেদনার দিন। এই দিনে লিভারপুল এর ৯৬ অনুসারী লিভারপুল বনাম নটিংহাম এর মধ্যে অনুষ্ঠিত এফএ কাপ সেমি-ফাইনাল দেখতে এসে মৃত্যু বরণ করেন। ঘটনাটি “হিলসবোরো দুর্ঘটনা” নামে পরিচিত। ঘটনার দিন সামর্থ্যকদের প্রবলচাপে ও ভিড়ে পৃষ্ঠ হয়ে ৯৬ মানুষ মৃত্যুবরন করেন এবং অন্য ৭৬৬ মানুষ গুরুতর আহত হন। হিলসবোরো স্টেডিয়াম বিপর্যয় ব্রিটিশ ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অন্যতম দুঃখজনক ঘটনা হিসাবে ধরা হয়।

Hillsborough-Remembered-Slider-1833428

এফএ কাপ এর নিয়ম অনুসারে সেমি-ফাইনাল খেলা নিরপেক্ষ মাঠে খেলা হত। ১৯৮৯ সালে ফুটবল এসোসিয়েশন হিলসবোরো এর মাঠ নির্বাচিত করে। স্টেডিয়ামে উদ্দীপিত লিভারপুল অনুসারীরা লেপ্পিংস লেন স্ট্যান্ড এ অবস্থান করছিল এবং গেটে  তারা বেশ ধীর গতিতে প্রবেশ করছিল। সমর্থকদের একটি উল্লেখযোগ্য শতাংশ ইতিমধ্যে কেন্দ্রীয় কলম দিকে অগ্রসর হচ্ছিল ফলে গেট এর দিকে সমর্থকদের চলাচল এর গতি  আরও কমে যায় এবং তারা ঠাসাঠাসি ভাবে অগ্রসর হতে থাকে, যা একটা সমস্যার কারণ হয়ে দাড়ায়। বলা বাহুল্য যে লেপ্পিংস লেন স্ট্যান্ড এর দিকে ৭টা অন্তরমুখী প্রবেশ পথ ছিল, যা দিয়ে একে – একে ১০,০০০ দর্শক প্রবেশ ও প্রস্থান করতে পারত।

সময় এর সাথে সাথে লেপ্পিংস লেন স্ট্যান্ড মুখে অতি মাত্রায় দর্শক বারতে থাকে এবং সবাই খেলা শুরুর আগে মাঠে প্রবেশ করার জন্য তাড়াহুড়ো  শুরু করে। তাদের এই চাপ হাল্কা করার জন্য চিফ সুপারিনটেনডেন্ট দাককেনফিলদ একটি প্রস্থান গেট খুলে দেওয়ার আদেশ দেন যা সরাসরি “স্ট্যান্ডিং” নামক সুড়ঙ্গপথ বরাবর ছিল।

Hillsborough+disaster

গেট খুলে দেয়ার পরে জনস্রতের চাপে সামর্থ্যকরা গেট এর দিকে ঢেলে পরে ও তারা কোন দিক নির্দেশনা ছাড়াই এগোতে থাকে এবং বেশির ভাগ দর্শকই সুড়ঙ্গপথ বরাবর অগ্রসর হয়, যা তাদেকে ৩ ও ৪ নং স্ট্যান্ড এর দিকে নিয়ে যায়, যা ইতিমধ্যে জনাকীর্ণ ছিল,তাদের আসন গ্রহণ করার জন্য তিল পরিমাণ যায়গা ছিল না। তাই সামর্থ্যকরা স্ট্যান্ড-এর বেড়া এর উপর কিংবা তাদের সহকর্মীদের কাঁধে নিয়ে নিজেদের জন্য যায়গা করে নেয়। খেলা শুরু হবার কিছুক্ষণ পরে অতি চাপে একটি বাধ ভেঙে পরে এবং সামর্থ্যকরা একজন আর একজনের উপর পৃষ্ঠ হয় এর ফলে ৬ মিনিট পরে খেলা বন্ধ করে দেওয়া হয়। আহতদের বহন করার জন্য ‘বিজ্ঞাপন বোর্ড’ ব্যবহার করা হয় এবং তাদের চিকিৎসা এর জন্য জরুরী সেবা সহায়তা প্রদান করা হয়। দুঃখজনকভাবে ঘটনাস্থলে ও চিকিৎসাধিন অবস্থায় ৯৪ সমর্থক মারা যান, ৭৬৬ জন আহত হয় ও ১৪ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। মৃতদের মধ্যে সিংহভাগই তরুণ। এফএ চেয়ারম্যান কি হয়েছিল জানার জন্য নিয়ন্ত্রণ বক্সে যান।

দাককেনফিলদ তার ব্যাখ্যায় এ একটা চরম মিথ্যা কথা বলেন। তিনি বলেন যে সামর্থ্যকরদের তাড়াহুড়া জন্য এই সমস্যা এর সৃষ্টি হয়।

১৯৯০ সালে একটি  সরকারি  দুর্যোগ তদন্ত প্রতিবেদনে এই দুর্যোগ এর মূল কারণ হিসাবে পুলিশের অসতর্ক কর্মকাণ্ড ও পরিস্থিতি সামাল দিতে না পারার ব্যর্থতাকে দায়ী করা হয়।

Liverpool memorial for Hillsborough victims Anfield wreaths and flowers-1474662

লিভারপুলের খেলা দেখতে এসে  যারা ঐ দিন মৃত্যু বরণ করেছিল তাদের স্মরণে হিলসবোরো স্টেডিয়াম, এনফিল্ড এবং ওল্ড হ্যাঁয়মার্কেট (লিভারপুল) ইত্যাদি স্থানে স্মারকলিপি  নির্মাণ করা হয়।